প্রতীক্ষা-আব্দুস সালাম আপেল


ঈদের নামাজ শেষে বাড়ি ফিরে আসতে না আসতেই ছোট বোন দৌড়ে এসে বলতেছে "তরু "কে রে ভাই,

 আমার ভাবি নাকি?ছোট বোনের প্রশ্ন শুনে মুহিবের  আকাশ থেকে পড়ার অবস্থা!!!

ক্যান কি হয়েছে বল দেখি, ভাইয়া তুই ঈদের নামাজ পড়তে যাওয়ার পর থেকে  ৩৩ বার ফোন দিয়েছিলো  এ নম্বর থেকে,
ফোন রিসিভ করিস নি ক্যানো?

 তোর তো সব নাম্বার এর আগে পিছে কিছু থাকে হয়তোবা কোন নাম্বার এর পিছে বড় ভাই, কোনটার পিছে ফ্রেন্ড কোনটা আবার ছোটবোন কিন্তু এই নাম্বার এ শুধু তরু তাই রিসিভ করি নি,, এই বলে পিচ্চি বোনটা ফোনটা এগিয়ে দিল।

মুহিবও এই নাম্বার ভালোভাবে চিনে না, হঠাৎ একদিন হুমায়ুন আহম্মেদ স্যারের বই পড়তে পড়তে এই নাম্বারটা পেয়েছিলো তরু নামে, সেই থেকে নাম্বারটা প্রতি ক্যান জানি মুহিবের  আলাদা একটা টান, সেই থেকে তার মোবাইলের  ফোনবুকে থাকে, প্রায় প্রতিদিন ট্রাই করে কিন্তু বইয়ে দেওয়া বা সিনেমায় খুঁজে পাওয়া  ফোন নাম্বার কি আর অন থাকে,তাই চিরাচরিত রুপে নাম্বারটা বন্ধ থাকে,, আর ফোনের স্কিনে ভাসে,,,, 

আজকে ঈদের ময়দান যাওয়ার আগেও মুহিব এই তরু নামের ফোন নাম্বারটিতে ফোন দিয়েছিলো কিন্তু যা হবার তাই হয়েছিলো বন্ধ ছিলো,,,


কিন্তু এই মেয়ে আমার নাম্বার কিভাবে পেল এই ভাবতে ভাবতে মুহিব ফোন হাতে নিয়ে এই নাম্বারটি ডায়াল করলো,,
রিং হচ্ছে,,, ওপাশ থেকে কিন্নরকন্ঠ হ্যালো আসসালামু আলাইকুম
ওয়ালাইকুমুস সালাম,, কে তরু??
হুম আমি তরু কিন্তু আপনি কে?
আমাকে আপনি চিনবেন না, আপনি আগে বলেন আপনি কেন আমাকো এতোবার ফোন দিয়েছিলেন, আর আমার নাম্বার এ বা আপনি কীভাবে পেলেন?

তরু:না মানে আমি ফোন টোন ওতো ইউজ করি না, বলতে পারেন ব্যাকডেটেড তাই একটা সিম কিনেছি সময় পেলে আম্মুর ফোনে সিমটা ভরে দু একজন বন্ধু বান্ধবের সাথে কথা বলি আর মিসড কল এলার্ট চালু করে রাখি, তাই গত কয়েকমাস ধরে দেখতেছি আপনার নাম্বারটা,,

তাই বলতে পারেন আগ্রহ নিয়ে ফোন দিয়েছি এতো বার

মেয়েটির কথা শুনে মুহিব যেন নতুন প্রান খুজে পেলে ঈদের দিনের আনন্দ আর আনন্দে নেই মহা আনন্দে পরিণত হয়েছে।
এই যুগেও এরকম মেয়ে পাওয়া সম্ভব এটা তো স্বপ্ন ছাড়া আর কিছুনা,আর মনে মনে ভাবতেছে এরকম মেয়েই তো আমি খুজছিলাম!!!

যাই হোক কিস্তিমাত করা যাবে এখন মামা,,,,,,,

আর এদিকে তরু কন্ঠে ভেসে আসছে আচ্ছা আপনি আমাকে গত কয়েকমাস ধরে এরকম করে ফোন দিচ্ছেন ক্যানো??
মুহিব কিছু বুঝতে না পেরে বলে ফেললো এমনিতেই, 
তারপর তাদের দুজনের মধ্যে ফোন নাম্বার পাওয়ার  বিষয়ে কথা হলো, এতে তরুর আগ্রহ কিছুটা বেড়ে গেলো।
কোন এক অজানা কারনে তরুর ভালো লাগা শুরু হলো ক্যান যেনো একটা স্বর্গীয় সুখ পেতে থাকলো। 

এখন সময় পেলেই তরু তার আম্মুর ফোনে সিমটা ভরে মুহিব এর সাথে কথা বলে,,,

এভাবে কথা বলতে বলতে কখন যে মুহিব তরুর, তরু মুহিবের প্রেমে পড়ে যায় তারা ব্যাপারটা দুজনেই বুঝতেই পারেনি,,,,,,

এভাবে কথা বলতে বলতে তাদের ৬ মাস কেটে যায়,,,,

তরুর হাতে এখন নতুন ফোন সময় পেলেই তাদের কথা হয়। এইতো সেদিন কথা বলতে বলতে ফজরের আজান দিচ্ছিল তারপরেও তাদের কথা হয় নাকো শেষ। দুজন এখন চরম ফিলিংস এ।

এভাবে তাদের ভালোই চলছিলো কিন্তু মাঝে মাঝে ছোট বড় কিছু দমকা হাওয়া তরুকে উড়ে নিয়ে যেতে চায় যেমন কিছুদিন পরপর তরুর বিয়ের জন্য বরপক্ষের লোক দেখতে আসে কিন্তু তরু ছেলের সাথে নির্জনে কি যেন বলে বিয়ে আর হয় না ভেংগে যায় কিন্তু আজ আর কোনভাবেই হলোনা আজ যে ছেলে দেখতে এসেছে তার সাথে  নির্জনে কথা বলার পর যেন ছেলের আগ্রহ দ্বিগুণ বেড়েছে বিয়ে করার জন্য। ছেলে ও ছেলের মা সামনের শুক্রকার বিয়ের দিন খন পাকা করবে।

এদিকে তরুর মাথা দপদপ করতে থাকে কিছু বুঝতে না পেরে তরু মুহিবকে ফোন করে,
মুহিব তাকে তার কাছে (ঢাকায় থাকে মুহিব) আসতে বললে তরু রাজি হয়ে যায়, সে বাসা থেকে পালিয়ে আসে,তরু ট্যাক্সি যোগে বাস কাউন্টার এ আসার সময় হঠাৎ এক বাসের সাথে সরাসরি সংঘর্ষে তরু স্পট ডেথ হয়ে যায়, তার সংগে থাকা মোবাইল ফোনটা  কোন একজন পথচারী নিয়ে যায়,
মুহিব বার বার চেষ্টা করার পরও তাকে আর ফোনে পায় না,,,,

আর এদিকে বাস স্টান্ড এ বসে থেকে মুহিব তরুর প্রহর গনে,,, এই প্রহর আর শেষ হয় না

মুহিব এখন ঢাকা শহরের বাসের যাত্রী গননা ওয়ালা পাগল,,, কখনো তাকে খুজে গাবতলি, কখনো বা টেকনিকাল এ,

বাসস্টপেজ এই মুহিবের এখন নিত্যসঙ্গী,, হাজার হাজার মানুষের ভিরে যদি কখনো দেখা মিলে প্রিয়দর্শিনীর ,,,,
বাস স্টপেজ এ আসার আজকে চার বসর পুর্ণ হচ্ছে,,,
মুহিব স্টপেজ কেই আপন করে নিয়েছে,
 বাসের মানুষ হিসেব করেই তার দিন কাটে,
 এখন আশেপাশের সবাই তাকে  চিনে  পাগল নামে, এভাবেই মুহিবের দিন কাটে। 

এপারে না হোক পর পারে যেন তাদের দেখা হয় তরু আর মুহিবের,,, দোয়া করবেন।

লিখেছেনঃ আব্দুস সালাম আপেল,৫ম ব্যাচ

No comments

ক্ষুদ্র চিন্তা

মানুষের মৌলিক চাহিদা ৬টি। খাদ্য, বস্ত্র, বাসস্থান, শিক্ষা, চিকিৎসা ও নিরাপত্তা। বস্ত্র অর্থাৎ টেক্সটাইল মানুষের দ্বিতীয় মৌলিক চাহিদা। এই...

Theme images by konradlew. Powered by Blogger.